খালেদা জিয়ার হার্টে আরও দুটি ব্লক, রাখা হয়েছে ৭২ ঘণ্টার নিবিড় পর্যবেক্ষণে



বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল-বিএনপি’র চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়ার হার্টে আরও দুটি ব্লক এবং কিছু জটিলতা থাকায় ৭২ ঘণ্টার নিবিড় পর্যবেক্ষণে রাখা হয়েছে বলে জানিয়েছেন তার চিকিৎসক ডা. এ জেড এম জাহিদ হোসেন।

ডা. এ জেড এম জাহিদ হোসেন বলেন, “শনিবার (১১ জুন) চিকিৎসার জন্য এভারকেয়ার হাসপাতালে গঠিত মেডিকেল বোর্ডের পরামর্শে, করোনারি এনজিওগ্রাম করে বিএনপি চেয়ারপার্সনের হার্টে তিনটি ব্লক পাওয়া গেছে। একটাতে এনজিও গ্রামের সঙ্গে সঙ্গে স্টেন্টিং করা হয়েছে।”

তিনি বলেন, “৭২ ঘণ্টা অতিবাহিত না হওয়া পর্যন্ত চিকিৎসকরা তার বর্তমান স্বাস্থ্যের অবস্থা সম্পর্কে কোনও মন্তব্য করতে রাজি নন। তিনি এখন সিসিইউতে চিকিৎসকদের নিবিড় পর্যবেক্ষণে রয়েছেন।”

ডা. জাহিদ বলেন, “কিডনি ও লিভারের দীর্ঘস্থায়ী সমস্যা থাকায়, তার অবস্থা পর্যবেক্ষণ করে চিকিৎসকরা এ বিষয়ে যথাযথ ব্যবস্থা নেবেন।অন্য দুটি ব্লক অপসারণের জন্য যে ওষুধের প্রয়োজন, তা তার কিডনিকে আরও ক্ষতিগ্রস্ত করতে পারে।”

“পরিবারের কোনো সদস্য ও বিএনপি নেতাদের এখনও খালেদা জিয়ার সঙ্গে দেখা করতে দেয়া হচ্ছে না;” জানান ডা. এ জেড এম জাহিদ হোসেন।



Source link

maria

এই যে, এই প্রবন্ধ পড়ার জন্য আপনাকে ধন্যবাদ. আমি একজন ওয়েব ডেভেলপার, 10 বছর ধরে লিখছি, এবং একজন প্রযুক্তি প্রেমী।